ইউক্রেন তার ফাইটার প্লেনকে রুশ হামলা থেকে রক্ষা করতে একটি বড় পরিকল্পনা করেছে

ইউক্রেন তার ফাইটার প্লেনকে রুশ হামলা থেকে রক্ষা করতে একটি বড় পরিকল্পনা করেছে
ছবি সূত্র: ফাইল এপি
ইউক্রেনীয় বিমান বাহিনী (প্রতীকী ছবি)

কিভ: ইউক্রেন তার পশ্চিমা মিত্রদের কাছ থেকে প্রাপ্ত কিছু F-16 যুদ্ধবিমানকে রুশ আক্রমণ থেকে রক্ষা করার জন্য বিদেশী বিমানঘাঁটিতে রাখতে পারে। ইউক্রেনের একজন জ্যেষ্ঠ সেনা কর্মকর্তা সোমবার এ তথ্য জানিয়েছেন। বেলজিয়াম, ডেনমার্ক, নেদারল্যান্ডস এবং নরওয়ে ইউক্রেনকে রাশিয়ার হামলা মোকাবেলায় সহায়তা করার জন্য ইউক্রেনকে ৬০টিরও বেশি মার্কিন তৈরি এফ-১৬ যুদ্ধবিমান দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। এই বিমানের ডেলিভারি এই বছরের শেষের দিকে শুরু হবে বলে আশা করা হচ্ছে, তাই ইউক্রেনীয় পাইলটরা এগুলো ওড়ানোর প্রশিক্ষণ নিচ্ছেন।

ইউক্রেন একটি মারাত্মক হামলা চালায়

ইউক্রেনীয় বিমান বাহিনীর বিমান চলাচলের প্রধান সের্হি হোলুবাসভ বলেছেন যে নির্দিষ্ট সংখ্যক বিমান ইউক্রেনের বাইরের বিমানঘাঁটিতে অবস্থান করবে যাতে তাদের এখানে লক্ষ্যবস্তু থেকে রক্ষা করা যায়। সেরহি হলুবাসভের এই বিবৃতি এমন সময়ে এসেছে যখন ইউক্রেন রাশিয়ার ওপর মারাত্মক হামলা শুরু করেছে। ইউক্রেন ফরোয়ার্ড পোস্ট থেকে প্রায় 600 কিলোমিটার দূরে একটি বিমান বাহিনী ঘাঁটির কাছে পার্ক করা একটি রাশিয়ান অত্যাধুনিক যুদ্ধবিমান আক্রমণ করেছে।

সতর্ক করেছেন পুতিন

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, ন্যাটো সদস্য দেশগুলো ইউক্রেনে ব্যবহৃত যুদ্ধবিমান রাখলে মস্কো সেখানে হামলার কথা ভাবতে পারে। ইউক্রেনের পশ্চিমা মিত্ররা কিয়েভে সামরিক সহায়তা বাড়ানোর চেষ্টা করছে কারণ রাশিয়ান সৈন্যরা 1,000 কিলোমিটার (620 মাইল) সীমান্তে আক্রমণ শুরু করতে মার্কিন সামরিক সহায়তায় দীর্ঘ বিলম্বের সুযোগ নেয়। ইউক্রেন বর্তমানে তার দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর খারকিভের কাছে রাশিয়ার আক্রমণ প্রতিহত করতে লড়াই করছে। (এপি)

(Feed Source: indiatv.in)